আজ : রবিবার, ২০শে আগস্ট, ২০১৭ ইং | ৫ই ভাদ্র, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

হায় সাংবাদিকতা – হায় মানবতা—

সময় : ৬:৪০ পূর্বাহ্ণ , তারিখ : ২৩ মার্চ, ২০১৭


একজন তরুন সাংবাদিক দীর্ঘ ক্ষন পাশে দাড়িয়ে রইলো ঠায়।
তার দিকে তাকাতেই ছল ছল করা চোখের পানি ঝরতে শুরু করলো।
ফুপিয়ে ফুপিয়ে কান্নার কন্ঠে যা বললো-
(চার মাস যাবত বাসা ভাড়া দিতে পারছি না।
বাসার মালিক তাই তালা ঝুলিয়ে দিয়েছে।
আমার ৫ বছরের মেয়েটা এত রাত পর্যন্ত বাসার বাইরে বসে আছে।
বললো-বাসার মালিককে এত অনুরোধ করলাম ৩০ তারিখ বাসা ছেড়ে দিবো কিন্ত সে কোন কথাই শুনে না। )
জিজ্ঞাস করলাম ভাড়া কত?-বললো তিন হাজার। তাতে চার মাসে ভাড়া হয় ১২ হাজার টাকা।
আমি এ রকম পরিস্থিতিতে খুবই বিব্রতবোধ করি , সামাল দিতে পারি না।
বুকের মাঝে চিন চিন করে কষ্ট অনুভব হয় বাসার বাইরে বসে থাকা শিশু কন্যার জন্য।
বাড়ির মালিকের ফোন নম্বর নিয়ে চলে এলাম, ভাবছি সাংবাদিক ছেলেটাকে এক মাসের ভাড়া তিন হাজার টাকা দিবো।
কিন্ত এসে দেখছি সত্যি ছেলেটার কপাল পোড়া, আমার কাছে তাকে দেওয়ার মত মাত্র দুই হাজার আছে। তাই পাঠালাম। ফোন করলাম বাসার মালিককে। তিনি তালা মেরে সাত সমুদ্র তের নদী পার হয়ে কোকাব শহরে চলে গেছেন। তাই চাবিটি তার ভাবির কাছ রেখে গেছেন-।- আমাকে জানালেন বাড়ির মালিক। কিন্ত সাংবাদিকের বউ যখন বাড়ি ওয়ালী ভাবীর কাছে চাবি আনতে গেল তখন সে চাবি না দিয়ে উল্টো বয়ান শুনালো- সাংবাদিকের কথার কোন ঠিক-ঠিকানা আছে! বাড়িওয়ালা দেখি-দেখছি করতে করতে রাত গড়াতে থাকে। আমার একমাত্র পুত্রধন বার বার ফোন করে আমাকে বাসায় যেতে বলছে তার নাকি শরীরে জর এসেছে। আমি ভাবছি- আমার ছেলে খাটের উপরে মায়ের কোলে সুয়ে আমাকে কাছে পাওয়ার ব্যাকুলতা প্রকাশ করছে। আর অনুজ সাংবাদিকের মেয়ে নিজের বাসায় ঢুকতেই পারছেন না।
পাতালের মেয়ে সূর্য্য চেনে না আধার তাহার ভাই।
প্রজাপতি বলে বুকে নাও তারে ; আলোয় তারে সাজাই।
কে তোরে দেয় জ¦ালায় ছায়ার শিখাটি-কার মুখ চেয়ে থাকো!!!!!!!!!!!!!!!!
জলের ঝিয়ারী তিন ভাগে জলে মিশিয়ে দিয়েছে বালি।
বালি আজ ডাকে কাছে আয় তবে পাতালে আগুন জ¦ালি।
পথ ছুটে যায় যার আঙ্গিনায় ; সেই পথ মেলে নাকো।

Top