তৃতীয় বিয়ের পর যা বললেন শ্রাবন্তী

সব গুঞ্জনকে উড়িয়ে দিয়ে এবার সত্যিই সাতপাকে বাঁধা পড়লেন ওপার বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী শ্রাবন্তী চ্যাটার্জী। এটি তার তৃতীয় বিয়ে। বেশকিছুদিন ধরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার বিয়ের গুঞ্জন নিয়ে বেশ আলোচনা সমালোচনা চলছিল। এবার বিয়ে নিয়ে তিনি নিজেই মুখ খুললেন। গেল ১৯ এপ্রিল বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন শ্রাবন্তী। তবে তা কলকাতায় নয়, চণ্ডীগড়ে। শ্রাবন্তীর বর রোশন সিং জেট এয়ারওয়েজ এর কেবিন ক্রু সুপারভাইজার হিসেবে কর্মরত আছেন। পাশাপাশি তিনি কিক ফিটনেস জিমনেশিয়ামের মালিক। বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা শেষ করে গত ২৩ এপ্রিল কলকাতায় ফিরেছেন শ্রাবন্তী। আজ মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) শ্রাবন্তী তার ফেসবুকে নিজের গায়ে হলুদ ও বিয়ের বেশকিছু ছবি প্রকাশ করেছেন। সেখানে বেশ হাস্যোজ্জল থাকতে দেখা যায় এই অভিনেত্রীকে। পারিবারিকভাবেই তারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন। তাদের গায়ে হলুদ ও বিয়েতে পরিবারের সবাই উপস্থিত ছিলেন। শ্রাবন্তী বলেন, দু’বছর আগে থেকেই কমন বন্ধুদের মাধ্যমে রোশনকে চিনতাম। একটি বিমান সংস্থার কেবিন ক্রু সুপারভাইজার। কিন্তু কথা হয়নি তখন। তারপর একবার বাংলাদেশ থেকে ফেরার পথে প্লেনে তার সাথে দেখা। সেখান থেকেই কথা, পরিচয় তারপর বন্ধুত্ব। আমাদের দুজনের জন্মদিন ও সাল একই বছরে। এছাড়াও আমাদের মধ্যে অনেক মিল রয়েছে। দুই পরিবারের সিদ্ধান্তেই আমরা বিয়ে করি।
তিনি আরও বলেন, আসলে আমি জ্যোতিষে বিশ্বাস করি। আমার জ্যোতিষী, যেখানে জন্ম তার কাছাকাছি বিয়ের অনুষ্ঠান করতে বলেছিলেন। আমার অমৃতসরে জন্ম। তার কাছে চন্ডিগড়ে বিয়ে করলাম। জ্যোতিষী এটাও বলেছিলেন যে, আমি যেন বাঙালি প্রথায় আগুনের সামনে বসে বিয়ে না করি। তাই আমি পাঞ্জাবি রীতিতে বিয়ের কাজ শেষ করেছি। সব আনুষ্ঠানিকতা শেষ হয়েছে। বিয়েতে নজর লেগে যায় তাই লুকিয়েই বিয়ে করেছি। কলকাতায় আমার অনেক শুভাকাঙ্খী আছে। আমি চাইনি আমার জীবনে কেউ হস্তক্ষেপ করুক। তাই লুকিয়ে পাঞ্জাবী রীতিতে বিয়ে করেছি। তিনি বলেন, কলকাতায় এখনও কোন অনুষ্ঠান করিনি। ‘আরবানা’-তে নতুন একটা ফ্ল্যাট নিয়েছি। এখন ইন্টিরিয়রের কাজ চলছে। সেটা শেষ হলে নতুন ফ্ল্যাটে বন্ধুদের ডেকে একটা ছোট্ট অনুষ্ঠান করব। বিয়ে নিয়ে শ্রাবন্তীর ছেলে ঝিনুকের কোন আপত্তি নেই বলে জানান তিনি। তিনি বলেন, আমি কখনও ঝিনুকের মতামত ছা়ড়া কাজ করি না। সে অনেক খুশি। ও চায় আমি যেন ভাল থাকি। আর এখন তো রোশন আর ঝিনুকের মধ্যে খুব ভালো সম্পর্ক। বন্ধুর মত মিশে তারা দুজন।উল্লেখ্য, ২০০৩ সালে নির্মাতা রাজীব বিশ্বাসের সঙ্গে শ্রাবন্তীর প্রথম বিয়ে হয়। রাজীব-শ্রাবন্তীর ঘরে একটি ছেলেও রয়েছে। নাম ঝিনুক। রাজীবের সঙ্গে বিচ্ছেদের পরে শ্রাবন্তীর বিয়ে করেন মডেল কৃষণ ব্রজকে। বিয়ের কিছু দিনের মধ্যেই শুরু হয় মনোমালিন্য। এই বিচ্ছেদের কারণ অবশ্য কেউই স্পষ্ট করেননি। গত জানুয়ারিতে কৃষণের সঙ্গে বিচ্ছেদ চূড়ান্ত হয়ে যায় শ্রাবন্তীর।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*